1. admin@daynikdesherkotha.com : Desher Kotha : Daynik DesherKotha
  2. arifkhanhrd74@gmail.com : desher kotha : desher kotha
  3. mdtanjilsarder@gmail.com : Tanjil News : Tanjil Sarder
অলৌকিক ভাবে জন্ম নেওয়া শিশুটির শেষ ঠিকানা ছোট্টমণি নিবাস - দৈনিক দেশেরকথা
রবিবার, ০৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ০৮:১০ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
কিশোরগঞ্জে বন্ধের দিনে বিদ্যালয়ের বটগাছ কাটছেন প্রধান শিক্ষক যোগ্য-সৎ-নির্ভিক ৪২ ট্রেইনি রিক্রুট কনস্টেবল চান পিরোজপুরের পুলিশ সুপার কিশোরগঞ্জে বাঁশঝাড়ে গলায় ফাঁস দিয়ে যুবকের আত্মহত্যা হবিগঞ্জে বেদে সম্প্রদায়ের লোকের মানবেতর জীবনযাপন করছে রাজাপুরে দুই ইজিবাইকের সংঘর্ষে প্রাণ গেলো শিশু সিয়ামের শিক্ষাক্রম নিয়ে যে এত রকম কথা হচ্ছে তার মধ্যে অধিকাংশ হচ্ছে মিথ্যাচার: শিক্ষামন্ত্রী জামালপুরে সরিষার বাম্পার ফলন,গাছ তুলে শুকাতে ব্যস্ত কৃষকরা। বাংলাদেশ আজ উন্নয়নশীল দেশে উন্নীত হওয়ার গৌরব অর্জন করেছে: প্রধানমন্ত্রী মিষ্টি কুমড়া ও সিম চাষে সাবলম্বী ওবায়দুর বিজ্ঞান শিক্ষায় পিছিয়ে বাংলাদেশ, স্মার্ট বাংলাদেশ গড়তে বিজ্ঞান শিক্ষার দৈন্যতা বড় একটি চ্যালেঞ্জ

অলৌকিক ভাবে জন্ম নেওয়া শিশুটির শেষ ঠিকানা ছোট্টমণি নিবাস

ইমরান হাসান
  • প্রকাশ শুক্রবার, ২৯ জুলাই, ২০২২

 46 বার পঠিত

ত্রিশাল প্রতিনিধি>ময়মনসিংহের ত্রিশালে ট্রাকচাপায় মায়ের পেট ফেটে জন্ম নেওয়া সেই অলৌকিক শিশুটিকে রাজধানীর আজিমপুরে অবস্থিত ‘ছোটমণি নিবাসে’ পাঠানো হয়েছে।

শিশুটিকে প্রথমে পরিবারের কাছে হস্তান্তরের কথা থাকলেও তাদের আর্থিক সচ্ছলতা না থাকায় তাকে নিবাসে পাঠানো হয়েছে।

শুক্রবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল থেকে সমাজসেবা অধিদপ্তরের মাধ্যমে শিশুটিকে সেখানে পাঠায় জেলা শিশুকল্যাণ বোর্ড।

ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের নবজাতক বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ও শিশুর চিকিৎসায় গঠিত মেডিকেল বোর্ডের সদস্য সচিব ডা. নজরুল ইসলাম বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, শিশুটি জন্ডিস থেকে সেরে উঠেছে।

শ্বাসকষ্ট, বুক ও ডান হাতের ফ্র্যাকচার পুরোপুরি ভালো হয়েছে। সম্পূর্ণ সুস্থ হওয়ায় ময়মনসিংহ জেলা শিশুকল্যাণ বোর্ড ও শিশুটির অভিভাবকের মতামতের ভিত্তিতে সমাজসেবা অধিদপ্তরের কর্মকর্তাদের মাধ্যমে ওই নিবাসে পাঠানো হয়েছে।

নবজাতকের দাদা মোস্তাফিজুর রহমান বাবলু বলেন, নাতনির নাম রাখা হয়েছে ফাতেমা। তাকে প্রথমে আমাদের কাছে রাখার জন্য বোর্ডে জানিয়েছিলাম।

কিন্তু আমাদের আর্থিক অবস্থা ভালো না। পরে সবাই বুঝিয়ে বলেছে ওইখানে থাকলে আমার নাতনি বেশি ভালো থাকবে- এ জন্য রাজি হয়েছি। আমার নাতনি ভালো থাকুক সেটিই চাই। নাতনির জন্য সবার কাছে দোয়া চাই।

প্রসঙ্গত, গত ১৬ জুলাই ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কে ট্রাকচাপায় প্রাণ হারান শিশুটির বাবা জাহাঙ্গীর আলম, মা রত্মা বেগম ও বোন সানজিদা আক্তার। এ সময় অন্তঃসত্ত্বা রত্নার পেট চিরে ভূমিষ্ঠ হয় গর্ভে থাকা কন্যাশিশুটি।

দেশেরকথা/বাংলাদেশ

এই বিভাগের আরো খবর

ফেসবুকে আমরা

এই সাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া কপি করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি।কপিরাইট @২০২০-২০২১ দৈনিক দেশেরকথা কর্তৃক সংরক্ষিত।
প্রযুক্তি সহায়তায় Shakil IT Park