বুধবার, ০৬ জুলাই ২০২২, ১০:৩১ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
আত্রাইয়ে দর্শনীয় ষাঁড় সম্রাটের দাম হাঁকা হয়েছে ১২ লাখ টাকা রাণীশংকৈলে পুকুড়ের পানিতে ডুবে স্কুল ছাত্রের মৃত্যু জামালপুরে স্কুল ছাত্রী ধর্ষনের অভিযোগ,থানায় মামলা মতলব উত্তরে ডাক্তারের ঐকান্তিক প্রচেষ্টায় পাল্টাচ্ছে হাসপাতালের পরিবেশ, বাড়ছে সেবার মান কাল থেকে গবিতে ঈদুল আযহার ছুটি  শুরু দম ফেলার ফুরসত নেই ত্রিশালের কামারদের! ছেলের সামনে বাবাকে  কুপিয়ে হত্যা, পিতা-পুত্র গ্রেফতার… রাণীশংকৈলে বিপুল উপস্থিতিতে শিক্ষক আইরিনের জানাযা ও দাফন সম্পন্ন চলনবিলে কৃষকের ঘরে উঠতে শুরু করেছে নতুন পাট, কৃষকের ফুটে উঠেছে রঙিন হাঁসি পাবনায় তীব্র লোডশেডিংয়ে দুর্ভোগে সাধারণ মানুষ, ঈদ বাজারে লোকসানের আশঙ্কা

রহ্মপুত্র পূর্বপারের মানুষের নৌকার দাবিতে নৌকার মাঝি হতে চান আব্দুল বারী

ইউনুছ
  • প্রকাশ বুধবার, ১০ নভেম্বর, ২০২১
  • ৫৮ বার-পাঠিত


কুড়িগ্রাম প্রতিনিধি>উলিপুরের সাহেবেরআলগা ইউনিয়নের অধিকাংশ ভোটার ব্রহ্মপুত্রের পূর্বপারের। তাই এপারের ভোটাররাই নৌকার ‘অধিকার’ রাখেন বলে দাবি তুলেছেন। তাদের মতে, এ ইউনিয়নে মোট ভোটার সংখ্যা প্রায় ১৪ হাজার। তার মধ্যে সাড়ে ৭ হাজারই পূর্বপারে।

এছাড়াও চরাঞ্চলের দুঃখ-দুর্দশা চরাঞ্চলের মানুষই বোঝেন। তাই চরাঞ্চলে নৌকার চেয়ারম্যান হলে তুলনামূকভাবে উন্নয়ন হবে চরাঞ্চলবাসীর। ফলে গত কিছুদিন ধরে আ’লীগের সংশ্লিষ্ট কতর্ৃপক্ষকে বিভিন্নভাবে এ কথাটাই বোঝাতে চাইছেন তারা। তাদের দাবি ‘নৌকা চাই’।জানা গেছে, সাহেবেরআলগা ইউনিয়নে নৌকার হাল ধরতে দেঁৗড়ঝাপ চালিয়ে যাচ্ছেন ৫ প্রাথর্ী। তারা হলেন- মো. আব্দুল বারী, শহিদুল ইসলাম, এ্যাডভোকেট জহিরুল ইসলাম, লুৎফা প্রধানী ও আব্দুর রশিদ মীর।

তাদের প্রত্যেকের অবস্থান জানতে চাইলে প্রবীন ভোটার ওমর আলী, তোফা উল্লাহ, ফরিদ মিয়া, হাবিব আহমেদসহ অনেকে জানান, আব্দুল রশিদ মীর একটি ইট ভাটার ম্যানেজারী করেন। তার আত্মীয়-স্বজনরা জামায়াতের রাজনীতির সাথে জড়িত। তার তেমন জনপ্রিয়তা নেই। অন্যদিকে শহিদুল ইসলাম একজন সরকারী স্কুল শিক্ষক। তার ইনডেক্স নম্বর-২৫৩৪২২। ফলে তিনি নির্বাচন করতে পারছেন না।

এ্যাডভোকেট জহিরুল ইসলাম বছরের অধিকাংশ সময় থাকেন জেলা শহর কুড়িগ্রামে। তিনি আইন ব্যবসা করেন। জনগণের দূর্দশা তিনি কি বুঝবেন? লুৎফা প্রধানী আমাদের চরাঞ্চল থেকে প্রায় ২৩ কিলোমিটার দুরে অবস্থান করেন। চরাঞ্চলে আসেন হঠাৎ-মঠাৎ।

ফলে তার উপরও আমাদের আস্থা নেই। তাই মো. আব্দুল বারীকে নৌকা প্রতীক দিতে হবে। তিনি নির্বাচিত হলে আমাদের চরাঞ্চলের উন্নয়ন হবে।এলাকার নবীন মিয়া, নজরুল ইসলাম, বাবুল আক্তার সহ অনেকে জানান, আব্দুল বারী নৌকা প্রতীক পেলে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হবেন এতে কোনো সন্দেহ নেই।

তিনি চেয়ারম্যান হলে চরের মানুষের দুঃখ অনেকাংশেই কমে আসবে। চলতি নভেম্বর মাসেই নির্বাচনী তফশিল ঘোষনা করার কথা রয়েছে। তফশিলের পর নৌকা যেন ব্রহ্মপুত্র পূর্বপারেই দেয়া হয়।

দেশেরকথা/বাংলাদেশ

এই বিভাগের আরো খবর

ফেসবুকে আমরা

এই সাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া কপি করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি।কপিরাইট @২০২০-২০২১ দৈনিক দেশেরকথা কর্তৃক সংরক্ষিত।
Theme Customized By Theme Park BD