1. admin@daynikdesherkotha.com : Desher Kotha : Daynik DesherKotha
  2. arifkhanhrd74@gmail.com : desher kotha : desher kotha
  3. mdtanjilsarder@gmail.com : Tanjil News : Tanjil Sarder
ত্রিশালে কিশোর গ্যাংয়ের আঘাতে যুবক খুন - দৈনিক দেশেরকথা
শুক্রবার, ০৯ ডিসেম্বর ২০২২, ০৫:১৮ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
বাঙলা কলেজ মাঠ নাকি কমলাপুর সিদ্ধান্ত রাতেই বিএনপি সমাবেশ নয়, বিশৃঙ্খলা করতে চায়: তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রী নয়াপল্টনেই ১০ ডিসেম্বর সমাবেশ করবে বিএনপি কিছু ঘটলে সরকার দায়ী থাকবে: মির্জা ফখরুল পিটিয়ে সাংবাদিকের হাত ভেঙে দিল বখাটে যুবক একাদশ শ্রেণিতে অনলাইনে ভর্তির আবেদন শুরু রাস্তা বন্ধ করে জনগণকে কষ্ট দিয়ে আর সমাবেশ করতে দেয়া হবে না: কাদের ঝালকাঠির সাংবাদিকদের সাথে মত বিনিময় করলেন জেলা প্রশাসক ফারাহ্ গুল নিঝুম বিএনপির নৈরাজ্যের প্রতিবাদে শরিফপুরে বিক্ষোভ মিছিল জবিতে ‘বাংলাদেশ পর্যটনে রোহিঙ্গা অনুপ্রবেশের প্রভাব’ বিষয়ক সেমিনার ক্ষমতা নয়, জনতার কথা ভাবুন : মোমিন মেহেদী

ত্রিশালে কিশোর গ্যাংয়ের আঘাতে যুবক খুন

ইমরান হাসান
  • প্রকাশ মঙ্গলবার, ২৩ আগস্ট, ২০২২

 48 বার পঠিত

ত্রিশাল(ময়মনসিংহ)প্রতিনিধি>ময়মনসিংহের ত্রিশালে কিশোর গ্যাংয়ের পরিকল্পনা অনুযায়ী বাসা থেকে ডেকে নিয়ে হাতুড়ি দিয়ে পিটিয়ে, ছুরিকাঘাতে হত্যা করা হয় সোহাগ মিয়া(২৭)কে। রবিবার (২১ আগস্ট) রাতে উপজেলার
বালিপাড়া ইউনিয়নের ধলা বাজার মন্দিরের পাশে এ ঘটনা ঘটে। সোমবার সকালে সোহাগ মারা যায়।এ
ঘটনায় এলাকায় ব্যাপক চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে।


পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়, ছয় মাস আগে কিশোর গ্যাংয়ের এক সদস্য পলকে মারধর করে
ধলার বাজারের স্থায়ী বাসিন্দ শহীদ মিয়ার ছেলে সোহাগ মিয়া। পলকে মারধর করার পর কিশোর
গ্যাংয়ের ভয়ে সোহাগ মিয়া বাড়ি ছেড়ে গাজীপুরের রাজেন্দ্রপুর ও জয়দেবপুর এলাকায় অবস্থান
করছিল। একমাস আগে নিজ এলাকায় ফিরে সোহাগ ব্যবস্থার প্রস্তুতি নিচ্ছিল।

এলাকায় আসার পর আগের ক্ষোভ থেকে পল ও তার সহযোগী আব্দুল রহমান বিশ^াস, জুনায়েদ ওরফে শান্ত, রায়হাস ও সাব্বির নজর রাখে এবং গোহাগকে মারার পরিকল্পনা করে। তারই ধারাবাহিকতায় রোববার রাতে
সোহাগকে বাসা থেকে ধরে নিয়ে যায় পল ও আব্দুর রহমানের নেতৃত্বে কিশোর গ্যাংয়ের সদস্যরা।

পরে ধলার বাজারের মন্দিরের পেছনে সোহাগকে ধরে নিয়ে হাতুড়ি দিয়ে পিটিয়ে হাত পা ভেঙ্গে দিয়ে পেটে
ছুরিকাঘাত করে। আহত অবস্থায় রাতেই সোহাগকে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি
করা হয়।

চিকিৎসাধীন অবস্থায় সোমবার সকালে তারঁ মৃত্যু হয়। তবে মৃত্যুর আগে হামলাকারীদের
নাম ভিডিওর মাধ্যমে বলে যান। ওই ভিডিও সংগ্রহ করেছে ত্রিশাল থানা পুলিশ।

সোমবার রাত ৮টার দিকে নিজ বাড়িতে তার দাফন সম্পন্ন হয়েছে।
ভিডিওতে সোহাগ বলেন, বিশ^াস রায়হান ও পল তার ওপর হামলা করেছে। তাদের মধ্যে বিশ^াস
বেশি মারধর করেছে।
গোহাগের স্ত্রী মুন বলেন, হত্যাকান্ডের সঙ্গে জড়িতদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দিতে হবে।
অভিযুক্তরা পলাতক থাকায় তাদের বক্তব্য জানা সম্ভব হয়নি।
স্থানীয় এক বাসিন্ধা জানান, ধলা গ্রামের উঠতি বয়সের কিশোররা প্রায় ছোট্ট খাটো ঘটনা নিয়ে
প্রতিদিনই মারামারি, গন্ডগোল, ঝগড়া কওে থাকে। তাদের ভয়ে সাধারণ মানুষ কোন কিছু বলে না।
স্থানীয় প্রভাবশালী নেতারা এই কিশোরদের আশ্রয় দিয়ে থাকে।

ত্রিশাল থানার ওসি মাইন উদ্দিন জানান, পূর্বশক্রতার জেনে এ ঘটনা ঘটেছে বলে প্রাথমিকভাবে
জানা গেছে। আসামীদের ধরার জন্য আমরা কাজ করছি। এ ঘটনায় মামলা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।

দেশেরকথা/বাংলাদেশ

এই বিভাগের আরো খবর

ফেসবুকে আমরা

এই সাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া কপি করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি।কপিরাইট @২০২০-২০২১ দৈনিক দেশেরকথা কর্তৃক সংরক্ষিত।
প্রযুক্তি সহায়তায় Shakil IT Park