1. news.desherkotha.bd@gmail.com : ARIF KHAN : ARIF KHAN
  2. arifkhanjkt74@gmail.com : daynikdesherkotha :
  3. arifkhanhrd74@gmail.com : ARIF KHAN : ARIF KHAN
রবিবার, ২৫ জুলাই ২০২১, ০৮:৫৪ পূর্বাহ্ন
শিরোনামঃ
স্বরূপকাঠীতে অগ্নিকান্ডে বসতঘরসহ সর্বস্ব হারিয়ে মাথা গোজার আকুতি ঠাকুরগাঁওয়ে ক্ষতিগ্রস্ত শিক্ষার্থীদের বাসায় ছাত্রলীগের উপহার পিরোজপুরের কাউখালীতে জমি জমা বিরোধকে কেন্দ্র করে চাচাকে পিটালেন ভাতিজা রাজাপুরে চলছে ঢিলেঢালা লকডাউন, উপেক্ষিত স্বাস্থ্যবিধি খুলনা বিভাগে একদিনে করোনায় আরো ৩৩ জনের মৃত্যু নিজের গুলির আঘাতে পুলিশ কনস্টেবলের মৃত্যু আমার বঙ্গবন্ধু’ প্রতিযোগীতায় দেশ সেরা পুরস্কার পেলেন পিরোজপুরের চন্দ্রিকা মন্ডল পিরোজপুরের কাউখালীতে বিদ্যুৎস্পৃষ্টে এক কিশোর নিহত অকোজো হয়ে পড়ে আছে রাণীশংকৈল হাসপাতালে জরুরি চিকিৎসা সামগ্রী শ্রীবরদীতে গৃহবধূকে ধর্ষণের অভিযোগ

রাজবাড়ী কারাগারে ধারণ ক্ষমতার সাতগুণ আসামি।

রাজবাড়ী জেলা প্রতিনিধিঃ মোঃসাগর হোসেন
  • প্রকাশিত শনিবার, ১২ জুন, ২০২১
  • ৫৩ বার দেখেছেন
দেশেরকথা

রাজবাড়ী জেলা কারাগারে নির্দিষ্ট ধারণ ক্ষমতার চেয়ে এখন সাতগুণের বেশি আসামি বন্দী রয়েছেন। অতিরিক্ত আসামি বন্দী থাকায় কারার ভেতরে তিল ধারণের ঠাঁই নেই। যে রুমে ১০ জন করে থাকার কথা সেই রুমে এখন অবস্থান করছেন প্রায় ৭১ জন আসামি। একশো জনের জায়গায় এখন রয়েছেন ৭১৫ জন।

মহামারী করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ রোধে সীমিত আকারে আদালতের কার্যক্রম পরিচালনা করায় জামিন পাচ্ছেন না আসামিরা। এতে ধারণ ক্ষমতার অতিরিক্ত বন্দীদের কারাগারে ভোগান্তি পোহাতে হচ্ছে। তবে জেলা প্রশাসন বলছে আদালতের কার্যক্রম স্বাভাবিক হয়ে গেলে ঠিক হয়ে যাবে।

দীর্ঘ দুই মাস ধরে দুই বিচারকের প্রত্যাহারের দাবিতে আইনজীবীদের আদালত বর্জন এবং করোনার প্রভাবে মামলার ধীরগতির ফলে আদালতের স্বাভাবিক বিচারিক কার্যক্রম ব্যাহত হওয়ায় মামলার জট তৈরি এবং কারাগারে বন্দীর সংখ্যা ক্রমেই বৃদ্ধি পাচ্ছে বলে একটি সূত্র জানায়।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা যায়, ২০০৬ সালের ১৪ অক্টোবর ১০০ জন বন্দীর ধারণ ক্ষমতা নিয়ে চালু হয় রাজবাড়ী জেলা কারাগার। এর মধ্যে ৯০ জন পুরুষ ও ১০ জন মহিলা।

অনুসন্ধানে জানা যায়, সর্বশেষ বুধবার (২৬ মে) পর্যন্ত রাজবাড়ী জেলা কারাগারে বন্দীর সংখ্যা ছিল ৭১৫ জন। এর মধ্যে পুরুষ ৬৮৮ জন এবং মহিলা ২৭ জন। বন্দীদের মধ্যে সশ্রম কারাদণ্ড প্রাপ্ত পুরুষ কয়েদি ৫৯ জন, মহিলা কয়েদি একজন, বিনাশ্রম কারাদণ্ড প্রাপ্ত পুরুষ কয়েদি ৫০ জন, মহিলা কয়েদি ৭ জন এবং ৫৯৮ জন হাজতি বন্দী রয়েছেন।

রাজবাড়ী জেল সুপার নাহিদা পারভীন বলেন, অতিরিক্ত আসামি থাকলেও আমার করার কিছুই নেই। আদালত কারাগারে আসামি পাঠালে আমাকে গ্রহণ করতেই হবে।

রাজবাড়ী জেলা প্রশাসক দিলসাদ বেগম দৈনিক দেশের কথা কে বলেন, এটি আমার এখতিয়ার বহির্ভূত। তবে আদালতের কার্যক্রম স্বাভাবিক হলে খুব দ্রুতই এই সমস্যার সমাধান হয়ে যাবে বলে আশা করছিরাজবাড়ী কারাগারে ধারণ ক্ষমতার সাতগুণ আসামি।

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর
© All rights reserved © 2021
WEB DEVELOPMENT BY KB-SOFTWARES