1. alaminjhalakati@gmail.com : mdalminjkt Jhalakathi : mdalminjkt Jhalakathi
  2. arifkhanjkt74@gmail.com : daynikdesherkotha :
রাজাপুরে আওয়ামীলীগ নেতা মাদ্রাসা কমিটির সভাপতির বিরুদ্ধে ঘুষ নেওয়ার অভিযোগ - দৈনিক দেশের কথা
বুধবার, ১৪ এপ্রিল ২০২১, ০৮:০৭ পূর্বাহ্ন

রাজাপুরে আওয়ামীলীগ নেতা মাদ্রাসা কমিটির সভাপতির বিরুদ্ধে ঘুষ নেওয়ার অভিযোগ

এম খায়রুল ইসলাম পলাশ রাজাপুর প্রতিনিধি
  • প্রকাশিত সোমবার, ২২ মার্চ, ২০২১
  • ৫৩ বার দেখেছেন
দেশেরকথা

ঝালকাঠির রাজাপুরে মাদ্রাসা পরিচালনা কমিটির সভাপতি আওয়ামীলীগ নেতা মোঃ ইদ্রিস আলী হাওলাদারের বিরুদ্ধে চাকুরি প্রত্যাশীদের কাছ থেকে মোটা অংকের টাকা ঘুষ নেওয়ার অভিযোগ উঠেছে।


উপজেলার শুক্তাগড় মাহামুদিয়া দাখিল মাদ্রাসার নিরাপত্তাকর্মী পদে চাকরির জন্য ৫ জন আবেদনকারি ২২ মার্চ সোমবার সকালে রাজাপুর প্রেসক্লাবে উপস্থিত হয়ে লিখিত বক্তব্য অভিযোগ করে বলেন,কর্তিৃপক্ষ গত ২০/০৩/২০২১ ইং তারিখ শনিবার ঝালকাঠি ইসলামিয়া ফাযিল মাদ্রাসায় নিয়োগ পরীক্ষার আয়োজন করে মাদ্রাসা কতৃপক্ষ। আবেদনকারি সকলেই প্রবেশপত্র সহ যথাসময়ে পরীক্ষার হলে গিয়ে উপস্থিত হয়।পরীক্ষার হলে ঢুকেই আমরা বুঝতে পারি মাদ্রাসার সভাপতি ইদ্রিস আলী হাওলাদার মোটা অংকের টাকার বিনিময়ে আগে থেকেই একজনকে বাছাই করে রেখেছেন। আমাদের সাথের পরীক্ষার্থী মৃত ইউনুস খলিফার ছেলে মোঃ রাজু প্রশ্ন পাওয়ার আগেই উত্তর লেখা শুরু করেছে। আমরা বাকিরা এর প্রতিবাদ করলে মাদ্রাসার সভাপতি এবং উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার আমাদের উপরে ক্ষীপ্ত হয়ে আমাদেরকে পরীক্ষা দিতে বাধ্য করে। আমাদের ভয়-ভীতি দেখিয়ে জোর করে পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে বাধ্য করে সভাপতি মোঃ ইদ্রিস আলী হাওলাদার ও উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার।
ইতিপূর্বে চাকুরী প্রার্থী মোঃ রায়হান এর কাছ থেকে মাদ্রাসা সংস্কার সহ বিভিন্ন অযুহাত দেখিয়ে প্রথমে ৪ লক্ষ টাকা দাবি করে সভাপতি মোঃ ইদ্রিস আলী হাওলাদার। প্রার্থীর পরিবারের বিশেষ অনুরোধে ৫০ হাজার টাকা কমিয়ে ৩ লক্ষ ৫০ হাজার টাকা ধার্য্য করা হয়। আশ্বাস পেয়ে ঐ আবেদনকারী রায়হানের বাবা একই গ্রামের হাসান কবির ধার দেনা ও লোন করে ধার্য্যকৃত টাকা তাহার মামাতো ভাই প্রফেসর কামাল হোসেন এর একাউন্টে জমা রাখে। সভাপতির চাহিদাক্রমে তাহার নিকট আত্মীয় উপজেলার আঙ্গারীয়ার কবির হাওলাদার এর নিকট ০৬/১২/২০২০ তারিখে ২ লক্ষ টাকার একটি চেক এবং ১৬/১২/২০২০ তারিখে ১ লক্ষ ৫০ হাজার টাকার অন্য আরেটি চেক (পূবালী ব্যাংক রাজাপুর শাখা) এ্যাডভোকেট মহারাজ ভূঁইয়া, আলাল হোসেন, কামাল হোসেন ও আনোয়ার হোসেন মিলন এর উপস্থিতিতে হস্তান্তর করেন।

এর কয়েকদিন পরে মাদ্রাসা পরিচালনা কমিটির সভাপতি মোঃ ইদ্রিস আলী হাওলাদার বিভিন্ন অযুহাতে রায়হানের বাবা হাসানের নিকট আরও ১ লক্ষ টাকা দাবী করেন। তখন নিরূপায় হয়ে রায়হানের বাবা তাহার গোয়ালের একটি গাভী বিক্রি করে এ্যাডভোকেট মহারাজ ভূঁইয়া, আলাল হোসেন, কামাল হোসেন ও আনোয়ার হোসেন মিলন এর সম্মুখে মাদ্রাসা পরিচালনা কমিটির সভাপতি মোঃ ইদ্রিস হাওলাদার এর নিকট আরও নগদ ১ লক্ষ টাকা প্রদান করেন।সভাপতি সাহেব ভিন্ন ভিন্ন সময় আবেদনকারীদের সবার কাছেই টাকা জোগার রাখার জন্য বলেন।

অনেকেই বাড়ীর গাছ পালা জমি বন্দকী দিয়ে টাকা জোগাড় রেখেছিল। কিন্তু বেশি টাকা (৬ লক্ষ) পাইয়া প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ৪র্থ শ্রেণি পর্যন্ত লেখাপড়া করেছে এমন একজন প্রার্থী জনৈক রাজু, পিতাঃ মৃত ইউনুচ আলী খলিফা কে নিয়োগ দেওয়ার সিদ্ধান্ত গ্রহন করে উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার আবুল বাসার তালুকদারের সহযোগীতায় নিয়োগ প্রত্রিুয়া সম্পন্ন করেন। ঐ আবেদনকারী রাজু উপজেলার বিতর্কিত এস.আলম মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ৮ম শ্রেণি পাশের একখানা সার্টিফিকেট নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি অনুযায়ি উপস্থাপন করেন।

মূলত ঐ স্কুলটি চলমান নয় কাগজপত্রে নামে মাত্র একটি স্কুল। এমন অসাধু কর্তৃপক্ষের কারণে এহেন কর্মকান্ডের ধর্মীয় প্রতিষ্ঠানের জন্য লজ্জাকর। তাই সংশ্লিষ্ট উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের আসু হস্তক্ষেপ কামনা করছেন অভিযোগকারীরা।সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন, রায়হান (২০), মোঃ খাইরুল ইসলাম মোঃ সোহাগ হাওলাদার (২৯),মোঃ কবির হোসেন (৩১), মোঃ রিয়াজ (২৬), পিতাঃ মোঃ হুমায়উন কবির এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন ভুক্তভুগী রায়হানের পিতা হাসান কবির।

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর
© All rights reserved © 2021
WEB DEVELOPMENT BY KB-SOFTWARES