বুধবার, ০৬ জুলাই ২০২২, ০৭:৪৫ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
আত্রাইয়ে দর্শনীয় ষাঁড় সম্রাটের দাম হাঁকা হয়েছে ১২ লাখ টাকা রাণীশংকৈলে পুকুড়ের পানিতে ডুবে স্কুল ছাত্রের মৃত্যু জামালপুরে স্কুল ছাত্রী ধর্ষনের অভিযোগ,থানায় মামলা মতলব উত্তরে ডাক্তারের ঐকান্তিক প্রচেষ্টায় পাল্টাচ্ছে হাসপাতালের পরিবেশ, বাড়ছে সেবার মান কাল থেকে গবিতে ঈদুল আযহার ছুটি  শুরু দম ফেলার ফুরসত নেই ত্রিশালের কামারদের! ছেলের সামনে বাবাকে  কুপিয়ে হত্যা, পিতা-পুত্র গ্রেফতার… রাণীশংকৈলে বিপুল উপস্থিতিতে শিক্ষক আইরিনের জানাযা ও দাফন সম্পন্ন চলনবিলে কৃষকের ঘরে উঠতে শুরু করেছে নতুন পাট, কৃষকের ফুটে উঠেছে রঙিন হাঁসি পাবনায় তীব্র লোডশেডিংয়ে দুর্ভোগে সাধারণ মানুষ, ঈদ বাজারে লোকসানের আশঙ্কা

মাধবপুরে ব্যবসায়ীরা তেল মজুদ করে কৃত্রিম সংকট ১লক্ষ ২০হাজার টাকা জরিমানা

লিটন পাঠান
  • প্রকাশ রবিবার, ১ মে, ২০২২
  • ২১ বার-পাঠিত

হবিগঞ্জ প্রতিনিধি>হবিগঞ্জের মাধবপুর পৌর বাজারে অভিযান চালান উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও এক্সিকি উটিভ ম্যাজিস্ট্রেট শেখ মঈনুল ইসলাম মঈন, বাজারের সবচেয়ে বড় দোকানে তেল নেই, সেটা কেমনে হয় লোকজন সয়াবিন তেল কিনতে গেলে দোকানদার বলছিলেন তেল নেই খোলা তেল নিতে হবে বোতলের চেয়ে খোলা তেলের দাম বেশি।

এত বড় দোকানে তেল থাকবে না এটা ভোক্তাদের কাছে অবিশ্বাস্য মনে হচ্ছিল। পরে ভোক্তারাই জানতে পারেন ওই মুদি দোকানির গোডাউনে বিপুল পরিমাণ তেল মজুদ রয়েছে। খবর পেয়ে সেখানে অভিযান চালান উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও এক্সিকি উটিভ ম্যাজিস্ট্রেট শেখ মঈনুল ইসলাম মঈন।

পরে ওই মুদি দোকানির গোডাউন থেকে থেকে বের করা হয় বিপুল পরিমাণ তীর তেলের কার্টুন সয়াবিন তেল। মেসার্স অজিত কুমার পাল নামে দোকানটির অবস্থান মাধবপুর বাজারে কালি মন্দির এলাকায় এটি ওই এলাকার বড় মুদি দোকান ও তীর সোয়াবিন তেলের ডিলার তেল লুকিয়ে কৃত্রিম সংকট তৈরি করার অপরাধে দোকানটির মালিক অজিত কুমার পালকে কৃষি কৃষি বিপণন আইন ২০১৮ আইনে ১ লক্ষ টাকা জরিমানা করা হয়েছে। সেই সঙ্গে মজুতকৃত তেল ভোক্তাদের কাছে বাজার মূল্য বিক্রি করার নির্দেশ দেন এ ছাড়াও আরও।

একটি দোকানিকে ২০ হাজারটাকা জরিমানা করা হয় ও মেসার্স শংকর পাল, মেসার্স স্বপন রায়, সুনিল স্টোর,নিলয় স্টোর রবীন্দ্র স্টোর ,কাজল ঠাকুরসহ বাজারে দোকানিদের বাজার মূল্য তেল বিক্রি করার নির্দেশ দেন মাধবপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট শেখ মঈনুল ইসলাম মঈন জানান, দোকানিরা তেল মজুদ করে কৃত্রিম সংকট তৈরি করছে।

জানতে পেরে আমরা মেসার্স অজিত কুমার পালের দোকানে গিয়ে দেখি বোতালজাত করা কোনো তেল নেই পরে তার গুদামে গিয়ে প্রচুর পরিমাণ তেল পাওয়া যায় তেল লুকিয়ে।
কৃত্রিম সংকট তৈরি করার অপরাধে দোকানের মালিককে ১ লক্ষ টাকা জরিমানা করা হয়। এ ছাড়াও আরও ১টি দোকানের মালিককে ২০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয় এসময় উপস্থিত ছিলেন, মাধবপুর থানার এসআই হুমায়ূন কবির নেতৃত্বে একদল পুলিশ ও স্থানীয় কাউন্সিলর পিন্টু পাঠান, কাউন্সিলর শেখ জহিরসহ প্রমূখ।

দেশেরকথা/বাংলাদেশ

এই বিভাগের আরো খবর

ফেসবুকে আমরা

এই সাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া কপি করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি।কপিরাইট @২০২০-২০২১ দৈনিক দেশেরকথা কর্তৃক সংরক্ষিত।
Theme Customized By Theme Park BD